বিএনপি দমনে সরকার উলঙ্গভাবে মাঠে নেমেছে – ফখরুল

SIMANTO SIMANTO

BANGLA

প্রকাশিত: অক্টোবর ২০, ২০২২

 

বাংলাদেশে বিরোধী দলের আন্দোলন ও জনপ্রতিবাদ দমন করতে সরকার উলঙ্গভাবে মাঠে নেমেছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। বিএনপির সমাবেশে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টির কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, সরকার গণতন্ত্রের কথা বলে বিরোধী দলের সমাবেশ, শান্তিপূর্ণ কর্মসূচিতে বাধা দিচ্ছ কেন?

বৃহস্পতিবার (২০ অক্টোবর) দুপুরে রাজধানীর গুলশানে দলের চেয়ারপারসনের কার্যালয়ে ‘মৃত্যুকূপে ধাবমান বাংলাদেশ’ শীর্ষক একটি স্মরণিকার মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে মির্জা ফখরুল ইসলাম এসব কথা বলেন।

এ সময় তিনি ২২ অক্টোবর খুলনায় বিএনপির বিভাগীয় সমাবেশে জনসমাগম ঠেকাতে বাসমালিকদের দিয়ে গণপরিবহন বন্ধ রাখার সিদ্ধান্তের উল্লেখ করেন।

মির্জা ফখরুল ইসলাম বলেন, ‘সরকার বাসমালিকদের দিয়ে গণপরিবহন বন্ধ করে দিচ্ছে। কেন, কারণটা কী? সমাবেশ যেন বড় না হয়। এ কোন মানসিকতা, সমাবেশ বড় না হওয়াতে তাদের লাভটা কী? এর মানে তারা বলতে পারবে যে দেখো, বিএনপির সমাবেশ বড় হয়নি।’

কিন্তু তাতে কী হবে—এমন প্রশ্ন তুলে বিএনপির মহাসচিব বলেন, ‘মানুষের অন্তরের মধ্যে সরকারের জন্য ঘৃণা এসে গেছে। প্রত্যেক মানুষ এখন তাদের ঘৃণা করে। কারণ, এ সরকার শুধু মিথ্যার ওপর, শুধু কথার ওপরে টিকে আছ। আর অন্য কোনো কারণ নেই।’

গাইবান্ধা-৫ আসনের উপনির্বাচন নিয়ে স্থানীয় প্রশাসন ও নির্বাচন কমিশনের দ্বন্দ্বের ঘটনার উল্লেখ করেন মির্জা ফখরুল ইসলাম। তিনি বলেন, ‘নির্বাচন আপনারা দেখছেন, কয়েক দিন ধরে নির্বাচন কমিশন নিয়ে কী চলছে। তাদের তৈরি করা নির্বাচন কমিশন—তাদের ডিসি-এসপিরা মানে না, তাদের কথা শোনে না। তাহলে এ নির্বাচন কমিশন তৈরি করেছে কাকে নির্বাচন করার জন্য? একটা ভুয়া নির্বাচন দেখিয়ে তারা আবার ক্ষমতায় আসতে চায়।’

সরকারের সমালোচনা করে মির্জা ফখরুল ইসলাম বলেন, ‘আজকে আওয়ামী লীগের অনির্বাচিত সরকার পরিকল্পিতভাবে দেশকে ধ্বংসের খাদের প্রান্তে নিয়ে গেছে। সেখান থেকে দেশকে ফিরিয়ে আনতে হবে। দেশকে আবার ১৯৭১ সালে স্বাধীনতাযুদ্ধের ঘোষণা দিয়ে জিয়াউর রহমান জাতিকে যে স্বপ্ন দেখিয়েছিলেন, পরবর্তীকালে ১৯৭৫ সালের ৭ নভেম্বরের মধ্য দিয়ে আবার যে নতুন স্বপ্ন দেখিয়েছিলেন, সেই স্বপ্নকে বাস্তবায়ন করতে হলে সবাইকে আত্মত্যাগের জন্য প্রস্তুত থাকতে হবে। সর্বশক্তি দিয়ে জনগণের অভ্যুত্থান সৃষ্টি করে এই ভয়াবহ দানবকে পরাজিত করতে হবে।