দালাল নির্মুলে সারাদেশে র‍্যাবের ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান, আটক-৫০০

SIMANTO SIMANTO

BANGLA

প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ৬, ২০২১

  সিমান্ত বাংলা ডেস্ক:

সরকারী বিভিন্ন প্রতি প্রতিষ্ঠানে দালাল নির্মুলে র‍্যাপিড একশন ব্যাটালিয়ন র‍্যাব এর ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযানে প্রায় ৫০০ দালালকে আটক ও জেল জরিমানা করা হয়েছে। অভিযানকালে আটক দালাল চক্রের এ  ৫০০ সদস্যকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড অর্থদণ্ড দেওয়া হয়।

গতকাল রবিবার (৫ সেপ্টেম্বর ২০২১) র‍্যাব  সদর দপ্তরের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের সহকারী পরিচালক (এএসপি) আ ন ম ইমরান খান  তথ্য নিশ্চিত করেছেন গনমাধ্যমকে।

ইমরান খান বলেন, সা ম্প্রতিক সময়ে বিভিন্ন  সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পরিবহনখাত, স্বাস্থ্যখাত,  পাসপোর্ট অফিস, বিআরটিএসহ বিভিন্ন সেক্টরে সক্রিয় দালাল  চক্রের  আধিপত্য নিয়ে বেশ সমালোচনার সৃষ্টি  হয়। দীর্ঘদিন এসব দালাল চক্রের অত্যাচারে সাধারন জনগণ প্রত্যাশিত সেবা থেকে বঞ্চিত বঞ্চিত হয়ে আসছিলো । অনেক সময় প্রত্যাশিত সেবা পেতে নির্ধারিত খরচের  চেয়ে  দ্বীগুন  অর্থ খরচ করতে হয়েছে তাদের । আবার অনেকেই অধিক অর্থ ব্যয় করেও প্রত্যাশিত সেবা না পেয়ে পড়েছেন মহা বিপদে । এরই প্রেক্ষিতে  সারাদেশে র‍্যাব বিভিন্ন সেক্টরে দালাল চক্রের বিরুদ্ধে বিশেষ  গোয়েন্দা নজরদারি চালায় ।

তারই  ধারাবাহিকতায় রবিবার (৫ সেপ্টেম্বর ২০২১) র‍্যাবের  নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটসহ অন্য নির্বাহী  ম্যাজিস্ট্রেটদের সমন্বয়ে  সারাদেশে বিভিন্ন সেক্টরে  দালাল নির্মুলে  র‍্যাবের ১৫টি ব্যাটালিয়ন একযোগে অভিযান পরিচালনা করে । ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ, সলিমুল্লাহ মেডিক্যাল কলেজ, সোহরাওয়ার্দী মেডিক্যাল কলেজ, চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ, রংপুর মেডিক্যাল কলেজ, ন্যাশনাল হার্ট ফাউন্ডেশন সহ , বিভিন্ন পাসপোর্ট অফিস, বিআরটিএ অফিস এলাকা ও দেশব্যাপী পরিচালিত ৬৮টি ভ্রাম্যমাণ আদালত ২৪৮ জন দালালকে ৯ লক্ষাধিক টাকা অর্থদণ্ড দেন। এছাড়াও ২৪৯ জন দালালকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দেওয়া হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে র‍্যাবের কাছে  দালালরা তাদের কৃতকর্মের কথা স্বীকার করে। দালাল চক্রের বিরুদ্ধে ভবিষ্যতেও র‍্যাবের  নজরদারি ও এমন অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে জানান র‍্যাবের এই কর্মকর্তা।

 সিমান্ত বাংলা/ ৬ সেপ্টেম্বর ২০২১