মঙ্গল. অক্টো. ২২, ২০১৯

ঐক্য পরিষদ থেকে প্রিয়া সাহাকে বহিষ্কার

সীমান্ত ডেস্ক > মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের কাছে দেশের বিরুদ্ধে নালিশ দেয়ায় সাংগঠনিক সম্পাদক প্রিয়া সাহাকে বহিষ্কার করেছে হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদ।

সোমবার সন্ধ্যায় সংগঠনের স্থায়ী কমিটির জরুরি বৈঠকে এই সিদ্ধান্ত হয়। সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক রানা দাশগুপ্ত গণমাধ্যমকে বলেন, ‘সংগঠনের শৃঙ্খলাবিরোধী কাজের জন্য সাময়িকভাবে বহিষ্কার করে সব সাংগঠনিক দায়িত্ব থেকে প্রিয়া সাহাকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে।’ প্রিয়া সাহাকে নিয়ে পরিষদের সিদ্ধান্ত এবং সার্বিক বিষয়ে বুধবার সংবাদ সম্মেলন করা হবে বলে জানান রানা দাশগুপ্ত।

গত বুধবার ডোনাল্ড ট্রাম্পের ওভাল অফিসে বিশ্বের বিভিন্ন দেশ থেকে যাওয়া সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের প্রতিনিধিরা তাদের বক্তব্য তুলে ধরেন। এ সময় বাংলাদেশ থেকে যাওয়া প্রিয়া সাহা বলেন, বাংলাদেশ থেকে তিন কোটি ৭০ লাখ হিন্দু, বৌদ্ধ, খ্রিষ্টান গায়েব হয়ে গেছে। প্রিয়ার অভিযোগ, বাংলাদেশে এক কোটি ৮০ লাখ হিন্দু দেশ ছাড়তে চায় না। কিন্তু তাদের ওপর নির্যাতন চলছে। ট্রাম্প যেন হস্তক্ষেপ করেন।

এই বক্তব্যের ভিডিও প্রকাশ হওয়ার পর তীব্র প্রতিক্রিয়া হয় দেশে। সরকারের দায়িত্বশীল ব্যক্তিরা তার কড়া সমালোচনা করেন। রবিবার প্রিয়ার বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহ মামলার একাধিক আবেদন করা হয় দেশের বিভিন্ন আদালতে। তবে তা খারিজ হয়ে যায়। পরে আইনমন্ত্রী জানান, তারা বিষয়টিকে রাষ্ট্রদ্রোহিতার মতো সিরিয়াসভাবে দেখছেন না। আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের জানিয়েছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নির্দেশ দিয়েছেন, আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ না দিয়ে প্রিয়ার বিরুদ্ধে যেন কোনো ব্যবস্থা নেয়া না হয়।

যদিও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন জানিয়েছেন, প্রিয়া দেশে ফিরলে তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে। সোমবার হিন্দু, বৌদ্ধ ও খ্রিস্টান কল্যাণ ট্রাস্ট যৌথ সংবাদ সম্মেলন করে প্রিয়া সাহার বক্তব্যের নিন্দা জানিয়েছে এবং তার বিচার দাবি করেছে।

ঢাকাটাইমস/২২জুলাই

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

সর্বশেষ খবর