মঙ্গলবার, ২৫ Jun ২০২৪, ০১:৪৩ অপরাহ্ন

শিরোনামঃ
নরসিংদীতে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ৭৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত উল্লাপাড়ায় মাইক্রোবাস-অটোভ্যান মুখোমুখি সংঘর্ষে অটোভ্যান চালক নি’হ’ত। নরসিংদীর রায়পুরায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে দুই গ্রুপের সংঘ’র্ষ, আহত ৪ ঘুমধুমে অজ্ঞাত ব্যক্তির মরদেহ উদ্ধার নরসিংদীর রায়পুরায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে দুই গ্রুপের সংঘর্ষ, আহত ৪ সেন্টমা‌র্টিন দ্বীপ নি‌য়ে বাকযুদ্ধ – মেজর না‌সিরু‌দ্দিন(অব) পিএইচ‌ডি রা‌সেল ভাইপার সা‌পের কাম‌ড়ে আক্রান্ত কৃষক এখ‌নো সুস্থ  রাসেলস ভাইপার নিয়ে আতঙ্ক না ছড়িয়ে সচেতন হওয়ার পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের এক ছাগল কিনেই বেরিয়ে এলো মতিউর-লাকী দম্পতির থলের বেড়াল ভারতকে হারিয়ে সেমিফাইনালের আশা বাঁচিয়ে রাখতে মরিয়া টাইগাররা
অধ্যাপক হুমায়ুন কবির চৌধুরী শিক্ষক, শিক্ষাবিদ ও রাজনীতিবিদ হিসেবে সমা‌জে অনুপ্রেরণা যোগায়

অধ্যাপক হুমায়ুন কবির চৌধুরী শিক্ষক, শিক্ষাবিদ ও রাজনীতিবিদ হিসেবে সমা‌জে অনুপ্রেরণা যোগায়

মিলন বড়ুয়া বিশেষ প্রতিবেদক ■ শিক্ষক থে‌কে শিক্ষাবিদ, প্রয়াত পিতার রাজনীতি ও সমাজ সংস্কা‌র আর মানবতাবা‌দি কর্মকা‌ন্ডে অনু‌প্রেরণায় বশীভূত হ‌য়ে রাজনীতির বলয় গ‌ড়ে তো‌লে, হ‌য়ে প‌ড়েন রাজনী‌তিবিদ। তেমনই রাজনী‌তি‌তে নিজেকে আড়াল ক‌রে রাখতে পছন্দ করা, সাদাসিদে জীবন-যাপনে অভ‌্যস্থ অধ্যাপক হুমায়ুন কবির চৌধুরী।
পড়ালেখা শেষ করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে। তিনি সাবেক উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা প্রয়াত নুরুল ইসলাম চৌধুরীর জৈষ্ঠ সন্তান। অধ্যাপক হুমায়ুন কর্মজীবন শুরু ক‌রেন প্রয়াত নুরুল ইসলাম চৌধুরী কর্তৃক প্রতিষ্ঠিত বঙ্গমাতা বেগম ফলিলাতুন্নেছা মুজিব মহিলা কলেজে অধ্যাপনা দিয়ে।

প্রতিষ্ঠাকালীন সময় থে‌কে তিনি ওতপ্রোতভাবে জড়িত এ ক‌লে‌জের সা‌থে। কলেজে নিজে জমিদান করে দাতা হিসেবে কলেজ এমপিওভুক্তি করণ সর্বোপরি কলেজটি জাতীয়করণে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ অবদান রা‌খেন। কলেজে দক্ষতা ও নিষ্টার সাথে দীর্ঘ ২৪ বছর শিক্ষকতায় নি‌জে‌কে বি‌লি‌য়ে দি‌য়ে‌ছেন। তারপর কক্সবাজার জেলা পরিষদে পরপর দু’বার সদস্য নির্বাচিত হন। জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান হিসেবে বর্তমা‌নে দায়িত্ব পালনে র‌য়ে‌ছেন।
ব্যাক্তিগত জীবনে অত্যন্ত সদালাপী, নম্রভদ্র, নিভৃতচারী এবং সজ্জন গুণ ব্যাক্তি। সোনার চামচ মুখে নিয়ে জন্ম হলেও কোন প্রকার পারিবারিক জৌলুস বা প্রভাবত্ব তা‌কে স্পর্শ করেনি। নির্লোভ, নিরহংকারী এই ব্যাক্তি সাধারণের মিশে যান সহজে।

উখিয়া টেকনাফের দু’বার নির্বাচিত সংসদ সদস্য শাহিন আকতার তাঁর ছোট বোন এবং উখিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি, রাজাপালং ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান নব নির্বাচিত উখিয়া উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী তাঁর ছোট ভাই। সমূদ্র ও পাহা‌ড়ি এ সীমান্ত জনপ‌দে চাইলে সোনার চামচ মু‌খে নি‌য়ে ঔশ‌র্যের মা‌লিক ব‌নে যে‌তে পার‌তেন, কিন্তু তা‌কে অর্থের লোভ গ্রাস কর‌তে পা‌রে‌নি।

প্রয়াত নুরুল ইসলাম চৌধুরী একজন সৎ ও ন্যায় বিচারক নেতা হি‌সে‌বে এতদাঞ্চ‌লে প্রচুর সুনাম কু‌ড়ি‌য়ে পর‌লোক গমন ক‌রেন।ন্যায় বিচারক হিসেবে ধর্মবর্ণ, দলমত নির্বিশেষে সকলের নিকট জনপ্রিয়তায় শী‌র্ষে ছি‌লেন। ন্যায় বিচারের কথা সর্বজনজ্ঞাত। অধ্যাপক হুমায়ুন কবির চৌধুরীকেও অনেকে তাঁর পিতার প্রতিচ্ছবি বলে ধারণা পোষণ ক‌রেন। কারণ উখিয়া উপজেলার বিভিন্ন এলাকার সমস‌্যায় জর্জরিত ফ‌রিয়া‌দিরা বিভিন্ন সমস্যা নিয়ে তাঁর কাছে আসেন সুবিচা‌রের প্রত‌্যাশায়। যারপর না ক‌রে সকল‌কে স‌ঠিক নি‌র্দেশনা ও পরামর্শ দি‌য়ে নি‌শ্চি‌ন্তের সুবাস বি‌লি‌য়ে যান।

বিশিষ্ট রাজনীতিবিদ ও সমাজসেবক এই ব্যাক্তি আওয়ামী রাজনীতির সাথে জড়িত। তিনি নিজ উদ্যোগে প্রতিষ্ঠা করেছেন অসংখ্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। উখিয়ার নারী শিক্ষা থেকে শুরু করে, প্রাথমিক স্তর, মাধ্যমিক স্তর, উচ্চ মাধ্যমিক, কারিগরি শিক্ষা সহ সকল সেক্টরেই হুমায়ুন কবির চৌধুরী সহ তাঁর পরিবারের অ‌বিস্বরণীয় উখিয়ার দৃশ‌্যপ‌টে। তাঁর পিতা বীর মুক্তিযোদ্ধা প্রয়াত নুরুল ইসলাম চৌধরী প্রতিষ্ঠা করেছিলেন উখিয়ার নারী শিক্ষার অন্যতম বিদ্যাপীঠ বঙ্গমাতা ফজিলাতুন্নেছা মুজিব মহিলা ক‌লেজ ও ফলিয়া পাড়া আলীমুদ্দিন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়। এই বিদ্যালয়ের বর্তমান দাতাও তিনি। শিক্ষাকে এগিয়ে নিতে অধ্যাপক

হুমায়ুন ও তাঁর ছোট ভাই জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরীসহ দুই ভাই মিলে প্রতিষ্ঠা করেন-
* নূরুল ইসলাম চৌধুরী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়,
* নূরুল ইসলাম চৌধুরী গুলজার বেগম উচ্চ বিদ্যালয় ,
* নূরুল ইসলাম চৌধুরী টেকনিক্যাল বিএম স্কুল এন্ড কলেজ ,
* জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী প্রা.বিদ্যালয় ,
* গুলজার বেগম চৌধুরী প্রাথমিক বিদ্যালয়,
* আবদুর রহমান বদি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, বহু মসজিদ, মাদ্রাসা মক্তব, নূরানী মাদ্রাসা হেফজখানা সহ আরো অনেক প্রতিঁষ্ঠান।এছাড়া উখিয়া সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়, কুতুপালং উচ্চ বিদ্যালয় প্রতিষ্ঠায়ও এই পরিবার সহপ্রতিষ্ঠাতার ভূমিকা পালন করে।তাছাড়া উখিয়া বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয়কে জাতীয়করণে তাঁর
ভূমিকা অনস্বীকার্য।

উখিয়া উপজেলার গরীব ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের উৎসাহ যোগাতে অধ্যাপক হুমায়ুন কবির চৌধুরী ও জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী নিজ পিতার নামে প্রতিষ্ঠা করেন বীর মুক্তিযোদ্ধা নুরুল ইসলাম চৌধুরী স্মৃতি ফাউন্ডেশন। এই ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে বৃত্তি পরীক্ষার মাধ্যমে প্রতি বছর শতাধিক ছাত্রছাত্রী কে বৃত্তি প্রদান করা হয়।

তিনি জেলা পরিষদ সদস্য নির্বাচিত হওয়ার আগে উখিয়ার সাধারণ জনগণ জানতো না যে জেলা পরিষদের মাধ্যমেও এলাকার উন্নয়ন কর্মকা‌ন্ডে কাজ ক‌রে‌ছেন। উখিয়ার বিভিন্ন মসজিদ, মন্দির, প্যাগোডা উন্নয়নে অর্থ বরাদ্ধ, মুসলিম কবরস্থান ও হিন্দু-বৌদ্ধ শ্মশানের সীমানা প্রাচীর নির্মাণ, উখিয়া কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের সামনে পবিত্র কোরআনের ভাস্কর্য স্থাপন সহ নানা উন্নয়ন সাধন করেন।

দল ক্ষমতায়, ছোট বোন এমপি, ছোট ভাই উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান, অতএব উন্নয়নের ধারাবাহিকতা রক্ষায় বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের ভিশন বাস্তবায়নে রাজাপালং ইউনিয়নের আপামর জনতা আগামী জুলাই মাসে অনুষ্ঠিতব্য উপনির্বাচনে শিক্ষক থেকে শিক্ষাবিদ, রাজনীতিবিদ ও সমাজসেবক অধ্যাপক হুমায়ুন কবির চৌধুরীকে প্রার্থী হিসেবে চায়।

সীমান্তবাংলা/এসএম/৭মে২৪

পোষ্টটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© কপিরাইট ২০১০ - ২০২৪ সীমান্ত বাংলা >> এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ণ বেআইনি এবং শাস্তিযোগ্য অপরাধ

Design & Developed by Ecare Solutions